ঢাকা, রোববার 12 May 2019, ২৯ বৈশাখ ১৪২৬, ৬ রমযান ১৪৪০ হিজরী
Online Edition

রাজশাহীতে ‘লু’ হাওয়া থাকবে আরো ৫ দিন

রাজশাহী অফিস : ঘূর্ণিঝড় ফনির প্রভাব কেটে যাওয়ার পর রাজশাহী অঞ্চলে তীব্র তাপদাহ চলছে। প্রকৃতিতে যেন আগুনের হলকা ছুটছে। অনেকেই একে মরুভূমির ‘লু’ হাওয়ার সঙ্গে তুলনা করেন।
আবহাওয়া দফতর সূত্রে জানা যায়, গত কয়েকদিনে তাপমাত্রা ৩৮ ডিগ্রি থেকে ৪০ ডিগ্রি সেলসিয়াসে উঠানামা করছে। গতকাল শনিবার বিকেলে এই তাপমাত্রা ছিলো ৩৮ ডিগ্রি। বাতাসে আর্দ্রতা ৫৪ শতাংশ। শুক্রবার রাজশাহীতে ৩৯ দশমিক ৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস রেকর্ড করা হয়। গতকাল মৃদু যে বাতাস বইছিলো তাতেই শরীর ঝলসে দেয়ার মতো অবস্থা। সূত্র জানায়, আরো অন্তত ৫ দিন এই অবস্থা অব্যাহত থাকার কথা। আবহাওয়ার পূর্বাভাসে বলা হয়, ঢাকা, রাজশাহী ও খুলনা বিভাগের ওপর দিয়ে মৃদু থেকে মাঝারি ধরনের তাপপ্রবাহ বয়ে যাচ্ছে এবং তা অব্যাহত থাকতে পারে।
বাঘায় পুকুরে বিষ  দিয়ে প্রায় ৮ লাখ মাছ নিধন
রাজশাহীর বাঘায় একটি পুকুরে বিষ প্রয়োগ করে প্রায় ৮ লাখ মাছ নিধন করেছে দুর্বৃত্তরা। উপজেলার বলিহার গ্রামের শৈয়লেন্দ্রনাথ সরকারের ছেলে পীযুষ কুমার সরকারের পুকুরে বিষ প্রয়োগ করে এই  মাছ নিধন করা হয়।
শনিবার পূর্বরাতে বলিহার গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। সকালে পুকুরে গিয়ে মরা মাছগুলো ভাসতে দেখে বিষ প্রয়োগে মাছ নিধনের বিষয়ে নিশ্চিত হন পুকুর মালিক পীযুষ। তার বাড়ি বাঘা পৌরসভার ১ নম্বর ওয়ার্ডের বলিহার গ্রামে। তিনি নিজের ৮ বিঘা জমির পুকুরে কয়েক মাস আগে প্রায় ৪ লাখ টাকার ৮ লাখ বিভিন্ন প্রজাতির মাছ ছাড়েন। কিছুদিন পরেই বড় হওয়া মাছগুলো বিক্রির আশা করছিলেন তিনি। তার আগেই দুর্বৃত্তের দেয়া বিষে মারা গেল মাছগুলো। তার ক্ষতি করার জন্যই কে বা কারা রাতের আঁধারের বিষ দিয়ে মাছগুলো নিধন করেছে। এ বিষয়ে আইনের আশ্রয় নিবেন বলে জানান তিনি।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ