ঢাকা, বৃহস্পতিবার 16 May 2019, ২ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬, ১০ রমযান ১৪৪০ হিজরী
Online Edition

সিলেটে ছাত্রলীগের দু’গ্রুপের সংঘর্ষ ও ভাংচুর

সিলেট ব্যুরো : গত মঙ্গলবার তারাবিহ’র নামাজ শেষ হওয়ার পর পরই রাত সাড়ে ১০ টার দিকে আধিপত্য বিস্তার নিয়ে নগরীর কুয়ারপাড় এলাকায় ছাত্রলীগের দু’পক্ষের সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। এসময় একটি পক্ষের কার্যালয়ও ভাংচুর এবং গোলাগুলীও হয়েছে বলে জানিয়েছেন স্থানীয়রা। জানা যায়, রাত সাড়ে দশটার দিকে মহানগর আওয়ামী লীগের উপ-দফতর সম্পাদক বিধানের অনুসারি শাকিল মোর্শেদ গ্রুপ ও আওয়ামী লীগ নেতা এডভোকেট নাসির উদ্দিনের অনুসারী ইমন ইবনে সামরাজের গ্রুপের এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, ‘সংঘর্ষের সময় ওই এলাকায় বেশ কয়েক রাউন্ড গুলীর শব্দ শুনা গেছে। এসময় এলাকায় আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে।’

সূত্র জানায়, গত সোমবার রাতে শাকিল মোর্শেদ গ্রুপের কর্মীরা ইমন ইবনে সামরাজের গ্রুপের এক কর্মীর উপর হামলা চালায়। এর জের ধরেই রাতে এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। তবে শাকিল মোর্শেদ এর পক্ষে অভিযোগ করা হচ্ছে, পিচ্চি ইমনের নেতৃত্বে এখানে তীর নামক জুয়ার আসর নিয়মিত বসত। আমাদের নেতাকর্মীরা তাদের বাঁধা দিলে তারা অতর্কিতে হামলা চালায়। হামলায় আমাদের ৬/৭ জন কর্মী আহত হয়েছেন। এসময় ইমন অনুসারী অফিসে থাকা বঙ্গবন্ধুর ছবিও ভাঙচুর করে বলে অভিযোগ করে তারা। সংঘর্ষ চলাকালে এলাকার মধ্যে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে। অনেকেই বাসা বাড়ির দরজা বন্ধ করে দেন।  এ ব্যাপারে সিলেট মহানগর পুলিশের কোতোয়ালী মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সেলিম মিয়া জানান, ‘দুই গ্রুপের মধ্যে মারামারির খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে যায়। বর্তমানে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে রয়েছে।’

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ