ঢাকা, শুক্রবার 5 July 2019, ২১ আষাঢ় ১৪২৬, ১ জিলক্বদ ১৪৪০ হিজরী
Online Edition

রাহুলের সিদ্ধান্তের প্রশংসায় বোন প্রিয়াঙ্কা গান্ধী 

৪ জুলাই, এনডিটভি, দ্য ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস, পিটিআই : কংগ্রেস সভাপতির পদ ছাড়ায় রাহুলকে অভিনন্দন জানিয়েছেন তার বোন প্রিয়াঙ্কা গান্ধী। তিনি জানান, এমন সৎ সাহস সবার থাকে না। এই সিদ্ধান্তের প্রতি শ্রদ্ধা জানাই। ভারতীয় সংবাদমাধ্যমের এক প্রতিবেদন থেকে এই তথ্য জানা যায়।  

বেশ কয়েক দিন ধরেই রাহুল গান্ধীর পদত্যাগ নিয়ে আলোচনা চলছিলো। গত ২৫ মে কংগ্রেসের প্রেসিডেন্টের দায়িত্ব ছাড়ার কথা বলেন রাহুল গান্ধী। লোকসভায় ৫৪৩ আসনের মধ্যে ৫২ আসন জিতে ভরাডুবির পর তিনি এ সিদ্ধান্ত জানান। এই ব্যর্থতার দায় নিলেও অন্য নেতাকর্মীদেরও সমালোচনা করেছেন রাহুল। তিনি জানান, দলের উচিত গান্ধী পরিবারের বাইরে কাউকে এই দলের দায়িত্ব দেওয়া।

দায়িত্ব ছাড়ার একদিন পরই এক টুইটবার্তায় প্রশংসা করেন প্রিয়াঙ্কা। তিনি বলেন, ‘তুমি যা করে দেখিয়েছো সবার এই সাহস থাকে না। তোমার সিদ্ধান্তের প্রতি গভীর শ্রদ্ধা।

পদত্যঅগ করার সময় রাহুল গান্ধী বলেছিলেন, ভারতের ক্ষমতায় টিকে থাকতে চায় সবাই। কেউই আত্মত্যাগ রতে চায় না। কিন্তু প্রতিপক্ষদের হারাতে হলো এখন আমাদের আত্মত্যাগ প্রয়োজন।

এদিকে দলের শীর্ষ পর্যায়ের সূত্রের বরাত দিয়ে ভারতীয় সংবাদমাধ্যমগুলোর প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, রাহুল গান্ধী সভাপতি হিসেবে দায়িত্ব পালন করে যাবেন। কারণ কংগ্রেসের ওয়ার্কিং কমিটি এখনও তার পদত্যাগপত্র গ্রহণ করেনি।

নতুন সভাপতি নির্বাচনের আগ পর্যন্ত দলের প্রধান

দলীয় প্রধানের পদ থেকে রাহুল গান্ধীর পদত্যাগের পর অন্তর্র্বতী সভাপতি নিয়োগের বিষয়টি নাকচ করে দিয়েছে কংগ্রেস। দলটির পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, নতুন সভাপতি নির্বাচনের আগ পর্যন্ত রাহুল গান্ধীই দলের প্রধান হিসেবে দায়িত্ব পালন করবেন। বার্তা সংস্থা পিটিআই’র বরাত দিয়ে ভারতীয় সংবাদমাধ্যম এ খবর জানিয়েছে।

দলের শীর্ষ পর্যায়ের সূত্রের বরাত দিয়ে খবরে বলা হয়েছে, রাহুল গান্ধী সভাপতি হিসেবে দায়িত্ব পালন করে যাবেন। কারণ কংগ্রেসের ওয়ার্কিং কমিটি এখনও তার পদত্যাগপত্র গ্রহণ করেনি।

বুধবার টুইটারে একটি খোলা চিঠিতে কংগ্রেসের সভাপতির পদ হতে পদত্যাগের ঘোষণা দেন রাহুল। এতে লোকসভা নির্বাচনে দলের পরাজয়ের জন্য নিজেকে দায়ী করেন। তিনি আরও লিখেছেন, দলের ভবিষ্যৎ উন্নতির জন্য জবাবদিহিতা গুরুত্বপূর্ণ। এই খোলা চিঠি প্রকাশের এক ঘণ্টার মধ্যেই রাহুল তার টুইটার প্রোফাইল থেকে কংগ্রেস সভাপতি মুছে দিয়েছেন। পরে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে রাহুল গান্ধী জানান, কংগ্রেসের খুব শিগগিরই নতুন নেতা মনোনীত করা উচিত। তিনি যেহেতু পদত্যাগ করেছেন তাই এই নেতা নির্বাচনের প্রক্রিয়ার সঙ্গে তিনি আর যুক্ত নন। তিনি বলেন, আমি পদত্যাগপত্র জমা দিয়ে দিয়েছি। আমি আর কংগ্রেস প্রেসিডেন্ট নই। রাহুল গান্ধী বলেন, কংগ্রেস ওয়ার্কিং কমিটির এখন উচিত একটি বৈঠক ডেকে নেতা নির্বাচন করা। সাক্ষাৎকারে তিনি বলেন, আমি এখানে যুক্ত হতে চাই না। সেক্ষেত্রে জটিলতা বাড়বে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ