ঢাকা, মঙ্গলবার 17 September 2019, ২ আশ্বিন ১৪২৬, ১৭ মহররম ১৪৪১ হিজরী
Online Edition

আরো দুই ডেঙ্গু রোগীর মৃত্যু

সংগ্রাম অনলাইন ডেস্ক: সারা দেশে ছড়িয়ে পড়া এডিস মশাবাহী ডেঙ্গু রোগের শিকার হয়ে মৃতের তালিকা দীর্ঘ হচ্ছে। এতে খুলনায় এক সবজি বিক্রেতা এবং ফরিদপুরে এক মসজিদের খাদেমের নাম নতুন করে যুক্ত হয়েছে।

ডেঙ্গু জ্বরে আক্রান্ত হয়ে খুলনা মেডিকেল কলেজ (খুমেক) হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায়  মিজানুর রহমান (৪০) নামে এক রোগীর মৃত্যু হয়েছে।

সোমবার সকাল ৭টার দিকে তিনি মারা যান। এ নিয়ে ডেঙ্গুতে খুলনায় মোট পাঁচজনের মৃত্যু হলো।

মৃত মিজানুর রহমান (৪০) রূপসা উপজেলার খাজাডাঙ্গা গ্রামের বাসিন্দা। তিনি পেশায় সবজি বিক্রেতা ছিলেন।

খুমেক হাসপাতালের আবাসিক চিকিৎসক শৈলেন্দ্রনাথ বিশ্বাস জানান, মিজানুর গত বৃহস্পতিবার তাদের হাসপাতালের ডেঙ্গু ওয়ার্ডে ভর্তি হয়েছিলেন।

সোমবার সকাল পর্যন্ত গত ২৪ ঘণ্টায় কমপক্ষে ২০ জন নতুন ডেঙ্গু রোগী খুলনার বিভিন্ন হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন। আর জেলায় চিকিৎসা নিচ্ছেন ৬৯ জন।

অন্যদিকে, ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে সকাল সাড়ে ১০টার দিকে মারা যান সদর উপজেলার গোলডাঙ্গীচর এলাকার শেখ শফিউদ্দিনের ছেলে দেলোয়ার হোসেন (৩৫)। তিনি জেলা শহরের পূর্বখাবাসপুর মসজিদের খাদেম ছিলেন।

ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের পরিচালক কামদা প্রসাদ সাহা বলেন, ডেঙ্গুতে আক্রান্ত দেলোয়ার হোসেনকে রবিবার সদর হাসপাতাল থেকে ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছিল।

ফরিদপুর মেডিকেলে এ নিয়ে ডেঙ্গুতে আক্রান্ত ছয় রোগীর মৃত্যু হলো।

দেলোয়ারের বাবা শফিউদ্দিন বলেন, তার ছেলে ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হলে প্রথমে তাকে সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। পরে অবস্থার অবনতি হলে রবিবার রাতে তাকে ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেয়া হয়।

ফরিদপুরের বিভিন্ন হাসপাতালে গত ২৪ ঘণ্টায় ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়ে ৫৭ জন ভর্তি হয়েছেন। বর্তমানে জেলায় চিকিৎসাধীন আছেন ৩৪৬ জন।

সূত্র: ইউএনবি

ডিএস/এএইচ

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ