ঢাকা, বৃহস্পতিবার 29 August 2019, ১৪ ভাদ্র ১৪২৬, ২৭ জিলহজ্ব ১৪৪০ হিজরী
Online Edition

মাদক নিয়ন্ত্রণের ৫ পরিদর্শক ও স্ত্রীদের সম্পদের হিসাব চায় দুদক

স্টাফ রিপোর্টার : অবৈধ সম্পদ অর্জনের অভিযোগ পেয়ে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের পাঁচ পরিদর্শক ও তাদের স্ত্রীদের সম্পদের হিসাব চেয়ে নোটিস দিয়েছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)। গতকাল বুধবার কমিশনের পরিচালক সৈয়দ ইকবাল হোসেনের স্বাক্ষরে তাদের নোটিস পাঠিয়ে ২১ কার্যদিবসের মধ্যে সম্পদের হিসাব বিবরণী দাখিল করতে বলা হয়েছে। এরা হলেন- মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের ঢাকা মেট্রোর খিলগাঁও সার্কেলের পরিদর্শক মো. সুমনুর রহমান ও তার স্ত্রী পেট্রোবাংলার উপব্যবস্থাপক তাছলিমা আক্তার; অধিদপ্তরের তেজগাঁও সার্কেলের পরিদর্শক মো. কামরুল ইসলাম ও তার স্ত্রী ফাতেমাতুজ জোহরা; রমনা সার্কেলের পরিদর্শক মো. শামসুল কবির ও তার স্ত্রী খাদিজা বেগম; সূত্রাপুর সার্কেলের পরিদর্শক মো. হেলালউদ্দিন ভূইয়া ও তার স্ত্রী মাহমুদা সিকদার এবং সিলেটের পরিদর্শক মো. লায়েকুজ্জামান ও তার স্ত্রী সাহিনা আক্তার মুন্সি।
 নোটিসে বলা হয়েছে, “প্রাপ্ত তথ্যের ভিত্তিতে অনুসন্ধান করে কমিশনের স্থির বিশ্বাস জন্মেছে যে, আপনি (যাকে নোটিস পাঠানো হয়েছে তার নাম) আপনার জ্ঞাত আয়ের বাইরে স্বনামে/বেনামে বিপুল পরিমাণ সম্পদ/সম্পত্তির মালিক হয়েছেন।"
এই নোটিস পাওয়ার ২১ কার্যদিবসের মধ্যে তাদেরকে নিজের, নির্ভরশীল ব্যক্তিবর্গের যাবতীয় স্থাবর/অস্থাবর সম্পত্তি, দায়-দেনা, আয়ের উৎস ও তা অর্জনের বিস্তারিত বিবরণ নির্ধারিত ফরমে দুদক কর্মকর্তা সৈয়দ ইকবাল হোসেনের বরাবর দাখিল করতে বলা হয়েছে। দুদকের উপ-পরিচালক এ কে এম মাহবুবুর রহমান এসব অভিযোগ অনুসন্ধানের দায়িত্বে রায়েছেন।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ