ঢাকা, বৃহস্পতিবার 29 August 2019, ১৪ ভাদ্র ১৪২৬, ২৭ জিলহজ্ব ১৪৪০ হিজরী
Online Edition

চৌহালীতে আউশ ধান কাটা মাড়াই শুরু বাম্পার ফলনে ঘরে ঘরে আনন্দ

চৌহালীতে আউশ ধান কাটা শুরু, বাম্পার ফলনে কৃষকেরা আনন্দিত।

আব্দুস ছামাদ খান, ভ্রাম্যমাণ প্রতিনিধি, সিরাজগঞ্জ থেকে : চলতি বছরে চৌহালী উপজেলায় আউশ ধান কাটা মাড়াই শুরু হয়েছে। বাম্পার ফলনে  ঘরে ঘরে আনন্দের জোয়ার বইছে। উৎপাদন খরচ কম, জীবনকাল কম এবং রোগ ও পোকা মাকড়ের আক্রমণ কম হওয়ায় এবার আউশ ধানের ফলন ভাল হয়েছে। চৌহালী উপজেলার কৃষি কর্মকর্তা মোঃ জেরিন আহমেদ জানান, এ বছর চৌহালী উপজেলায় বোনা আউশ ধানের আবাদ হয়েছে কালোমানিক ৪০০ ও পরাঙ্গী ১৫০ হেক্টর মোট ৫৫০ হেক্টর জমিতে। গত বছরের তুলনায় বেশী। কৃষি বিভাগ কৃষকদের আউশ আবাদে উৎসাহিত করা হচ্ছে। ধানের দাম ভাল পেলে আগামীতে আরও আউশ আবাদ বৃদ্ধি পাবে। তিনজন কৃষকের সাথে কথা বলে জানা যায়, চৌহালী উপজেলার খাষকাউলিয়া ইউনিয়নের জ্যোতপাড়া গ্রামের কৃষক  জাহিদুল ইসলাম ২ বিঘা, ফারুক দেড় বিঘা ও বোরহান ১ বিঘা জমিতে আউশ আবাদ করেছেন। তারা কৃষি বিভাগের সহায়তায় আউশের আবাদ শুরু করেছেন এবং ভাল ফলন পেয়েছেন। বোরো ও রোপা আমন ধানের মাঝামাঝি আর একটা অতিরিক্ত ফসল পাওয়া যায়। এ উপজেলায় আউশ আবাদ বৃদ্ধি ও প্রযুক্তি বিস্তারে নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছে  কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের মাঠ পর্যায়ের উপ সহকারী কৃষি কর্মকর্তাবৃন্দ। আউশ আবাদে কালোমানিক ও পরঙ্গী ধানের জাতটি বেশি চাষ হয়েছে। মাত্র ১০০ থেকে ১১০ দিন জীবনকাল এবং রোগ ও পোকামাকড়ের আক্রমণ কম হওয়ায় আউশ ধান আবাদের দিকে কৃষকরা ঝুঁকছে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ