ঢাকা, বৃহস্পতিবার 14 November 2019, ৩০ কার্তিক ১৪২৬, ১৬ রবিউল আউয়াল ১৪৪১ হিজরী
Online Edition

কক্সবাজারে ৫৮ গ্রাম প্লাবিত, হোটেলে আটকা ১০ হাজার পর্যটক

সংগ্রাম অনলাইন ডেস্ক: ঘূর্ণিঝড় বুলবুলের প্রভাবে বঙ্গোপসাগরের কক্সবাজার উপকূল প্রচণ্ডভাবে উত্তাল হয়ে পড়েছে।প্রবল বেগে ধেয়ে আসা জোয়ারের পানি ৪-৫ ফুট উচ্চতায় বৃদ্ধি পেয়ে উপকূলে আছড়ে পড়ছে।

আজ ৯ নভেম্বর শনিবার সন্ধ্যা পর্যন্ত জেলার কুতুবদিয়া, মহেশখালী, পেকুয়া, চকরিয়া, টেকনাফ ও কক্সবাজার সদর উপজেলায় অন্তত ৫৮ গ্রাম প্লাবিত হয়েছে।পানিবন্দী হয়ে পড়েছে পাঁচ শতাধিক ঘরবাড়ি।এছাড়া শহরের বিভিন্ন হোটেল আটকা পড়েছে প্রায় ১০ হাজার পর্যটক।

আজ সকাল থেকে হালকা বৃষ্টিপাত শুরু হয়। বিকেল চারটা থেকে শুরু হয় ভারী বর্ষণ। এ সময় দমকা হাওয়াও বইতে থাকে। জোয়ারের পানি স্বাভাবিকের চেয়ে চার-পাঁচ ফুট উচ্চতায় বৃদ্ধি পেয়ে উপকূলে আছড়ে পড়ছে। জোয়ারের ধাক্কায় পানি উন্নয়ন বোর্ডের (পাউবো) বেড়িবাঁধ ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছে।

পাউবো ও উপজেলা প্রশাসন সূত্র জানায়, বুলবুলের প্রভাবে কুতুবদিয়া উপজেলার উত্তর ধুরুং, দক্ষিণ ধুরুং, আলী আকবর ডেইল, লেমশিখালী, কৈয়ারবিল ইউনিয়নের অন্তত ২৫টি গ্রাম প্লাবিত হয়েছে। জোয়ারে পানিতে ডুবে গেছে তিন শতাধিক ঘরবাড়ি। এই উপজেলার ৪০ কিলোমিটার বেড়িবাঁধের মধ্যে সম্পূর্ণভাবে ভাঙা রয়েছে ১৩ কিলোমিটার।

ডিএস/এএইচ

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ