ঢাকা, সোমবার 9 December 2019, ২৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৬, ১১ রবিউস সানি ১৪৪১ হিজরী
Online Edition

দুর্নীতি ও অনিয়ম:বাংলাদেশ সুপ্রিম কোর্টের অ্যাফিডেভিড শাখার সব কর্মকর্তাকে বদলি

সংগ্রাম অনলাইন ডেস্ক: দুর্নীতি ও অনিয়মের অভিযোগ প্রকাশ হবার পর সুপ্রিম কোর্টের অ্যাফিডেভিড শাখার সকল কর্মকর্তাকে বদলি করা হয়েছে। এ গণবদলির বিষয়টি হাইকোর্টের রেজিস্ট্রার দপ্তর থেকে গণমাধ্যমকে নিশ্চিত করা হয়েছে। গতকাল (সোমবার) সুপ্রিম কোর্টের আপিল বিভাগ এ নিয়ে ক্ষোভ প্রকাশের পর আজ এ পদক্ষেপ গ্রহণের খবর পাওয়া গেল।  

প্রধান বিচারপতির নেতৃত্বে ৫ সদস্যের আপিল বেঞ্চ গতকাল এজলাসে বসার পর অ্যাটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলম আদালতকে জানিয়েছিলেন, একটি মামলা গতকাল (সোমবার) ৩ নাম্বার সিরিয়ালে থাকার কথা কিন্তু অদৃশ্যভাবে তা ৮৯ নাম্বার সিরিয়ালে চলে গেছে।

এ সময় ক্ষোভ প্রকাশ করে প্রধান বিচারপতি জানিয়েছেন, সুপ্রিম কোর্টের এফিডেভিট শাখায় সিসি ক্যামেরা বসিয়েও অনিয়ম বন্ধ করা যায়নি। তিনি বলেছেন, “এফিডেভিট শাখায় সিসি ক্যামেরা বসালাম, এখন সবাই বাইরে এসে এফিডেভিট করে।“

প্রধান বিচারপতি আরও বলেন, রাষ্ট্রপক্ষের অনেক আইনজীবী আদালতে আসেন না, বেতন বেশী হওয়ার কারণে এমন হচ্ছে। বেতন কম হলে তারা ঠিকই কষ্ট করে আদালতে আসতেন। এসময় ডেপুটি রেজিস্ট্রার মেহেদী হাসানকে তাৎক্ষণিকভাবে তলব করেন আপিল বিভাগ। উনি এসে তার ব্যাখ্যা দিলেও ক্ষুব্ধ প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করেন প্রধান বিচারপতি নেতৃত্বাধীন আপিল বিভাগ।

তবে, আদালতে মামলার কার্যক্রমের বাইরের কথাবার্তা গণমাধ্যমে যাওয়া উচিত নয় বলেও মন্তব্য করেছে আপিল বিভাগ।

এ প্রসঙ্গে সাবেক আইনমন্ত্রী শফিক আহমেদ বলেন, যারা আদালতে ভুয়া এফিডেভিট দিচ্ছেন তারা এবং যারা তা গ্রহণ করছেন, তাদেরও শাস্তি হওয়া দরকার।

আইনজীবীরা বলছেন, সুপ্রিম কোর্টের প্রতিটি পদে পদে দুর্নীতি। মনিটরিং বাড়ানোর পাশাপাশি প্রসাশনকে ঢেলে সাজানোর পরামর্শ তাদের।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ