রবিবার ৩১ মে ২০২০
Online Edition

মঠবাড়িয়ায় মাসোয়ারা না পেয়ে কোস্টগার্ড কতৃক জেলেদের ওপর নির্যাতনের অভিযোগ

মঠবাড়িয়া (পিরোজপুর) সংবাদদাতা : উপকূলীয় বলেশ্বর নদীতে জেলেদের কাছ থেকে নিয়মিত মাসোয়ারা না পেয়ে তিন জেলেকে ধরে নিয়ে নির্যাতন করেছে কোস্টগার্ড সদস্যরা। উপজেলার বড়মাছুয়া গ্রামের সোহাগ (২০), জসিম (২১) ও বেল্লাল (২৫) নামে তিন জেলে ওপর এমন নির্যাতনের অভিযোগ করেন।
অভিযোগে জানাগেছে, জীবন জীবিকার তাগিদে বলেশ্বর নদ তীরবর্তী এলাকায় দীর্ঘদিন ধরে প্রায় ২ শতাধিক জেলে মাছ ধরে আসছিল। জেলে জামাল, শাহিন ও নজির জানান কোস্টগার্ড আমাদেরকে ভয়ভীতি দেখিয়ে জাল প্রতি এক হাজার টাকা করে মাসোয়ারা নেয়। বর্তমানে নদীতে মাছ না পাওয়ায় জেলেরা মাছুয়া খালে জাল মেরামতের কাজ করছিল। এ সময় কোস্টগার্ডের টহল দল এসে মাসোয়ারা দাবী করেন। কোস্টগার্ডের দাবীকৃত টাকা দিতে না পারায় মাছুয়া গ্রামের জামালের ছেলে সোহাগ, হালিমের ছেলে জসিম ও শাহ আলম খন্দকারের ছেলে বেল¬ালকে গত সোমবার বিকেলে ধরে নিয়ে যায়। এ সময় কবির হোসেনকে পিটিয়ে গুরুতর জখম করে দুই ছড়া জাল নিয়ে যায়। আহত কবিরকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপে¬ক্সে ভর্তি করা হয়েছে।
মোড়েলগঞ্জের কোস্টগার্ড ইনচার্জ মনিরুজ্জামান জানান, জেলেরা আমাদের ওপর মারমুখী হয়ে আক্রমন করতে এলে ধাওয়া করে তিন জেলেকে আটক করা হয় এবং জেলে কবির বোট থেকে লাফিয়ে পড়ে আহত হন। আটককৃত জেলেদের মোড়েলগঞ্জ চন্ডিপুর লঞ্চঘাটে ছেড়ে দেয়া হয়েছে।
এ ব্যাপারে কোস্টগার্ড মংলা অঞ্চলের প্রধান লেঃ কমান্ডার ফরিদ মিয়া মাসোয়ারা আদায়ের অভিযোগ অস্বীকার করেছেন।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ