বৃহস্পতিবার ১৩ জুন ২০২৪
Online Edition

সিলেটের মদন মোহন কলেজের অধ্যক্ষের অফিসে হামলাকারী ছাত্রলীগ ক্যাডারকে অবশেষে গ্রেফতার করল পুলিশ

সিলেট ব্যুরো : অবশেষে কোতোয়ালী থানা পুলিশ গ্রেফতার করল সিলেটের মদন মোহন কলেজের অধ্যক্ষের অফিসে হামলাকারী ছাত্রলীগ ক্যাডার রাজেসকে। সম্প্রতি ম ম কলেজের অধ্যক্ষ ড. আবুল ফতেহ ফাত্তাহ’র কাছে স্বরস্বতী পূজার জন্য বড় অংকের চাঁদা দাবি করে ছাত্রলীগের কলেজ সভাপতি অরুণ দেবনাথ সাগরসহ ছাত্রলীগ ও ছাত্রদলের কয়েকজন ক্যাডার। চাঁদা না দেয়ায়  মদন মোহন কলেজের অধ্যক্ষের কার্যালয়ে হামলা-ভাংচুর করে ছাত্রলীগ ক্যাডাররা। কলেজ পরিচালনা পর্ষদ এর সভাপতি ও অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আব্দুল মুহিত এর নির্দেশে অরুণকে প্রধান আসামী করে কোতোয়ালী থানায় মামলা দায়ের করেন কলেজ অধ্যক্ষ । এ হামলার ঘটনায় গত সোমবার রাতে রাজেস সরকার (২০) নামের এক ছাত্রলীগ ক্যাডারকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। গত সোমবার সন্ধ্যা সাড়ে ৭টায় নগরীর তোপখানা থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়। গ্রেফতারকৃত রাজেস সরকার নগরীর ফাজিলচিশত এলাকার স্বপন সরকারের পুত্র। তার মূল বাড়ী কুমিল্ল¬া জেলায়। কোতেয়ালী থানার ওসি আতাউর রহমান বাবুল দৈনিক সংগ্রামকে জানান, গ্রেফতারকৃত রাজেস মদন মোহন কলেজের অধ্যক্ষের কার্যালয়ে হামলা ও ভাংচুর, অধ্যক্ষকে প্রাণে মারার হুমকির ঘটনায় দায়েরকৃত মামলার এজাহারভুক্ত আসামী। গতকাল মঙ্গলবার তাকে আদালতে সোপর্দ করা হলে বিজ্ঞ আদালত তার জামিন নামঞ্জুর করে জেলহাজতে প্রেরণের নির্দেশ দেন। গত স্বরসতী পূজার চাঁদা দাবিতে গত ২৬ জানুয়ারি বিকালে মদন মোহন কলেজ ছাত্রলীগ সভাপতি অরুন দেবনাথ সাগরের নেতৃত্বে ছাত্রলীগের ক্যাডাররা কলেজের অধ্যক্ষ ড. আবুল ফতেহ ফাত্তাহ এর কার্যালয়ে হামলা ও ভাংচুর চালায়। এক পর্যায়ে ক্যাডাররা অধ্যক্ষ ড. ফাত্তাহকে প্রাণে মারার হুমকি দিয়ে মারতে উদ্যত হয়। এ ঘটনায় মদন  মোহন কলেজের শিক্ষকরা কর্মবিরতি পালন করেন। ঘটনার ৪ দিন পর ছাত্রলীগ নেতা অরুন দেবনাথ সাগরসহ তার সহযোগীদের নাম উল্লেখ করে ৩০ জানুয়ারি কোতোয়ালী থানায় মামলা দায়ের করা হয়। মামলা নং ৩৭। ঘটনার পর অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আব্দুল মুহিত এমপি অধ্যক্ষের কার্যালয় ভাংচুরকারী ক্যাডারদের গ্রেফতার করতে পুলিশকে নির্দেশ দেন। এর প্রায় এক মাস পর গত সোমবার এক আসামীকে পুলিশ গ্রেফতার করতে পেরেছে। তবে মামলার প্রধান আসামী অরুন দেবনাথ সাগরসহ অন্য আসামীরা এখনো ধরা ছোঁয়ার বাইরে। জানা গেছে, গ্রেফতারকৃত রাজেস ছাত্রলীগ ক্যাডার সাগরের অন্যতম সহযোগী। কুমিল্লার সন্তান রাজেস মদন মোহন কলেজে ভর্তির পরই নানা অপরাধমূলক কর্মকা-ে জড়িয়ে পড়ে। রাজেস মদন মোহন কলেজে ভর্তি বাণিজ্য ও ছাত্র ভর্তির অর্থ লুটপাটকারীদের অন্যতম বলে সংশ্লি¬ষ্ট সূত্র জানিয়েছে। কোতোয়ালী থানার ওসি আতাউর রহমান বাবুল আরো জানান, ছাত্রলীগ ক্যাডার রাজেসকে গ্রেফতার করা হয়েছে। মামলার প্রধান আসামী সাগরসহ অন্যদের গ্রেফতারের জন্য পুলিশের অভিযান অব্যাহত রয়েছে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ