বৃহস্পতিবার ২৮ মে ২০২০
Online Edition

জম্মু ও কাশ্মীরে সেনা ইউনিটে গ্রেনেড বিস্ফোরণে ৩ ভারতীয় সৈন্যসহ নিহত ৬

২৯ নবেম্বর, এনডিটিভি : ভারতের জম্মু ও কাশ্মীরের নাগরোটার সেনাবাহিনীর গোলন্দাজ ইউনিটের ওপর বড় ধরনের এক হামলায় তিন সেনা নিহতের খবর জানিয়েছেন ভারতীয় গণমাধ্যমগুলো।
এনডিটিভি জানিয়েছে, গতকাল মঙ্গলবার ভোর সাড়ে ৫টায় ভারী অস্ত্রে সজ্জিত আত্মঘাতী হামলাকারীরা গ্রেনেডের বিস্ফোরণ ঘটিয়ে ইউনিটটিতে ঢুকে পড়ে।
অন্ততপক্ষে চার আত্মঘাতী ইউনিটের অফিসার্স মেসে গিয়ে এলোপাতাড়ি গুলীবর্ষণ করে, এরপর ভবনটিতে প্রবেশ করে ধ্বংসযজ্ঞ চালায়। শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত তিন হামলাকারী নিহত হয়েছেন বলে ধারণা করা হচ্ছে, অন্যরা এখনো লুকিয়ে আছেন।
জম্মু থেকে প্রায় ২০ কিলোমিটার দূরে নাগরোটা ভারতীয় সেনাবাহিনীর সিক্সটিন কর্পসের সদরদপ্তর। এই সেনাদলটি বৃহত্তর জম্মু এলাকার সীমান্ত রক্ষা ও সন্ত্রাসীদের সঙ্গে লড়াইয়ে নিয়োজিত। তাদের শিবিরটির চারদিকে ঘন বন ও ঠিক পেছনে একটি নদী আছে।
কর্মকর্তা জানিয়েছেন ইউনিটটি অত্যন্ত সুরক্ষিত হলেও হামলাকারীরা আত্মঘাতী স্কোয়াডের সদস্য হওয়ায় ‘তারা ভিতরে প্রবেশ করতে দৃঢ় প্রতিজ্ঞ ছিল’।
 সেনাবাহিনী এলাকাটি ঘিরে রেখেছে। ওই এলাকার সব শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ রাখা হয়েছে। শিবিরটির কাছ দিয়ে যাওয়া একটি মহাসড়কেও যান চলাচল বন্ধ রাখা হয়েছে।
ভারতীয় প্রতিরক্ষামন্ত্রী মনোহর পারিকর জানিয়েছেন, সামরিক বাহিনীর স্থাপনায় হামলা হয়েছে, বেসামরিকদের লক্ষ্যস্থল করা হয়নি।
দ্বিতীয় আরেকটি ঘটনায় সাম্বা সেক্টর দিয়ে আন্তর্জাতিক সীমান্ত অতিক্রমের সময় বিএসএফ আরেকদল সন্ত্রাসীকে বাধা দেয়, এখানে গোলাগুলীতে তিন সন্ত্রাসী নিহত হয়।
গত কয়েক সপ্তাহ ধরে আন্তর্জাতিক সীমান্ত অতিক্রম করে ভারতে প্রবেশের উদ্যোগ নিয়ে বিভিন্ন জায়গায় হামলার চেষ্টা করছে সন্ত্রাসীরা, জানিয়েছে এনডিটিভি।
সেপ্টেম্বরে কাশ্মীরের উরি সেনা ঘাঁটিতে সীমান্ত অতিক্রম করে পাকিস্তান থেকে আসা সন্ত্রাসীদের হামলায় ১৯ ভারতীয় সেনা নিহত হয়। এর কয়েকদিনের মধ্যে পাকিস্তানের ভূখ-ে ভারতে হামলার প্রস্তুতি নিতে থাকা সন্ত্রাসীদের অবস্থানগুলোত ‘সার্জিক্যাল হামলা’ চালায় ভারতীয় বাহিনী, খবর ভারতীয় গণমাধ্যমের।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ