শনিবার ০৪ জুলাই ২০২০
Online Edition

কুমিরা-গুপ্তছড়া নৌপথে স্টীমার সার্ভিস কোন অজুহাতে বন্ধ করা যাবে না

চট্টগ্রাম অফিস : সন্দ্বীপ চ্যানেলে গুপ্তছড়া ঘাটে গত ২ এপ্রিল লাল বোট উল্টে ১৮ জন নহিতরে ঘটনার প্রতিবাদে গতকাল শুক্রবার সকালে চট্টগ্রাম প্রেস ক্লাব চত্বরে এক মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়।
সন্দ্বীপ অধিকার আন্দোলন আয়োজিত মানববন্ধনে প্রধান অতিথির বক্তব্যে আওয়ামী যুবলীগের কেন্দ্রীয় সদস্য মো. আরিফুর রহমান বলেন, বিষয়টি খুবই অমানবিক। এ ঘটনায় ১৮ জনের লাশ পাওয়া গেলেও এখনো নিখোঁজ অন্তত ৭ জন। ১৯৫৪ সালে সন্দ্বীপ চ্যানেলে বাহাদুরা জাহাজ ডুবে যাওয়ার পরে এটাই বড় ট্রাজেডি। তিনি কুমিরা টু গুপ্তছড়া নৌ-পথে যাত্রী হয়রানি, অবহেলা, অব্যবস্থাপনা দূর করে নিরাপদ যাতায়াত নিশ্চিত করণে কছিু পদক্ষেপ নেওয়ার জন্য কর্তৃপক্ষের কাছে জোর দাবি জানান। সগেুলো হচেছ বআিইডব্লউিটসিি ও জেলা পরিষদের মাঝে সমন্বয় সাধন, এরিয়াল লিপ্ট বা ভাসমান জেটি চালু ,লাইফ জ্যাকেট পড়া বাধ্যতামূলক করা , কর্তৃপক্ষের যুগোপযোগী মনিটরিং, ১০ টাকা বকশিস বন্ধ করা ,বর্ষাকালে এ পথে আব্দুল মতিনের মত বড় জাহাজ দেয়া ,সি ট্রাক দেয়া , দুই পাশে যাত্রী প্রতিনিধি নিশ্চিত করা (৯) ঐ দিন মৃত্যুবরণকারী প্রতিজনের পরিবারকে ১ কোটি টাকা করে ক্ষতিপূরণ প্রদান।
সভাপতির বক্তব্যে সাপ্তাহিক আলোকিত সন্দ্বীপ সম্পাদক অধ্যক্ষ মুকতাদের আজাদ খান বলেন, স্টীমার চালু রেখে ত্রুটি মুক্ত করা হোক। কুমিরা টু গুপ্তছড়া নৌ পথে কোন অজুহাতে স্টীমার সার্ভিস বন্ধ করা যাবে না।
সন্দ্বীপ অধিকার আন্দোলনের সদস্য সচিব হাসানুজ্জামান সন্দ্বীপির পরিচালনায় মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন জাতীয়তাবাদী যুবদল সন্দ্বীপ উপজেলার আহ্বায়ক ফোরকান উদ্দিন রিজভী, মাসিক সজাগ সন্দ্বীপ সম্পাদক প্রভাষক ফসিউল আলম, বিএনপি সন্দ্বীপ উপজেলার সদস্য জহিরুল ইসলাম প্রমুখ।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ