মঙ্গলবার ১৪ জুলাই ২০২০
Online Edition

রোহিঙ্গা নির্যাতনের প্রতিবাদে বনফুল আদিবাসী গ্রীনহার্ট কলেজ ও শাক্যমুনি বৌদ্ধবিহারের উদ্যোগে মানববন্ধন

মিয়ানমারের রাখাইন রাজ্যে রোহিঙ্গাদের ওপর চলমান জাতিগত নিধন, অমানবিক নির্যাতন এবং রোহিঙ্গাদের স্বদেশভূমি ত্যাগে বাধ্য করার প্রতিবাদে মানববন্ধন করেছে রাজধানীর মিরপুরে অবস্থিত বনফুল আদিবাসী গ্রীনহার্ট কলেজ এবং শাক্যমুনি বৌদ্ধবিহার। গত ১৩ সেপ্টেম্বর বনফুল আদিবাসী গ্রীনহার্ট কলেজ এবং শাক্যমুনি বৌদ্ধবিহার সংলগ্ন প্রধান সড়কে অনুষ্ঠিত এই মানববন্ধনে উপস্থিত ছিলেন- শাক্যমুনি বৌদ্ধবিহারের অধ্যক্ষ ও বনফুল আদিবাসী গ্রীনহার্ট কলেজের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি ভেন. প্রজ্ঞানন্দ মহাথেরো, বনফুল আদিবাসী গ্রীনহার্ট কলেজের রেক্টর প্রফেসর তরুণ কান্তি বড়–য়া এবং কলেজের ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ সুদীপ কুমার মন্ডল। রোহিঙ্গাদের জন্য মানবিক আর্তি সম্বলিত ব্যানার ও ফেস্টুন হাতে অনুষ্ঠিত মানববন্ধনে বনফুল আদিবাসী গ্রীনহার্ট কলেজের শিক্ষক শিকিক্ষা, ছাত্র-ছাত্রী এবং শাক্যমুনি বৌদ্ধবিহারের ভিক্ষুগণ অংশগ্রহণ করেন।  রোহিঙ্গাদের প্রতি সকল প্রকার সহিংসতা বন্ধের দাবি জানিয়ে মানববন্ধনপূর্বক সংক্ষিপ্ত বক্তব্যে শাক্যমুনি বৌদ্ধ বিহারের বিহারাধ্যক্ষ ও বনফুল আদিবাসী গ্রীনহার্ট কলেজের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি ভেন. প্রজ্ঞানন্দ মহাথেরো বলেন, সহিষ্ণুতা, পারস্পরিক শ্রদ্ধাবোধ ও শান্তিপূর্ণ সহাবস্থান বিশ্বসভ্যতায় তথাগত বুদ্ধের অবদান। একজন বৌদ্ধ হিসেবে আমরা এই মানবিক আহবান মেনে চলি। তিনি বলেন, রাখাইন রাজ্যে রোহিঙ্গাদের প্রতি নির্যাতনের ফলে মানবিক বিপর্যয় ঘটেছে। আমরা রোহিঙ্গা নির্যাতনের তীব্র প্রতিবাদ জানানোর পাশাপাশি তাদের পাশে থেকে সকল ধরনের মানবিক সমর্থন দেবো। প্রেস বিজ্ঞপ্তি।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ