শুক্রবার ০৫ জুন ২০২০
Online Edition

শীর্ষ আলেম মোস্তফা আজাদের ইন্তিকাল

স্টাফ রিপোর্টার: মিরপুর আরজাবাদ মাদ্রাসার প্রিন্সিপাল ও জমিয়তে উলামায়ে ইসলামের সহ-সভাপতি প্রবীণ আলেমে দ্বীন মাওলানা মোস্তফা আজাদ গতকাল শুক্রবার রাতে ইন্তিকাল করেছেন। ইন্নালিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন।
জমিয়তে উলামায়ে ইসলামের (একাংশ) যুগ্ম মহাসচিব মাওলানা ওয়ালিউল্লাহ আরমান জানান, কলাবাগান ওরিয়ন হাসপাতালে সকাল পৌনে ১০টায় শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন মাওলানা মোস্তফা আজাদ। তিনি দীর্ঘদিন ধরে অসুস্থ ছিলেন।
জামায়াতে ইসলামীসহ বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের পক্ষ থেকে শোক জানিয়ে বিবৃতি দেয়া হয়েছে। বিবৃতি দিয়েছেন খেলাফত মজলিসের আমির মাওলানা মুহাম্মদ ইসহাক, মহাসচিব আহমদ আবদুল কাদের, ইসলামী ঐক্যজোটের চেয়ারম্যান মাওলানা আবদুল লতিফ নেজামী ও মহাসচিব মুফতি ফয়জুল্লাহসহ অনেকে।
মাওলানা মোস্তফা আজাদ ছিলেন মুক্তিযোদ্ধা। তার ছেলে মাওলানা জুলকারনাঈন আজাদ জানান, ১৯৭১ সালে সরাসরি সশস্ত্র যুদ্ধে অংশ নেন আল্লামা মোস্তফা আজাদ। তার বাবা ছিলেন ইস্ট পাকিস্তান রাইফেলসের অবসরপ্রাপ্ত সুবেদার মেজর। পাকিস্তানিদের প্রতিহত করতে তরুণ ও ছাত্রদের প্রশিক্ষণ দেন তিনি। গোপালগঞ্জ জেলার কাশিয়ানী থানাধীন ধলগ্রাম ইউনিয়নের সাধুহাটি গ্রামের মাঠে প্রশিক্ষণ কেন্দ্র খুলেছিলেন আল্লামা মোস্তফা আজাদের বাবা মেজর বাদশা মিয়া। মুক্তিযুদ্ধে তার যুদ্ধের এলাকা ছিল মেজর অব. জলিলের নেতৃত্বাধীন ৯ নম্বর সেক্টর (বৃহত্তর খুলনা ও বৃহত্তর বরিশাল অঞ্চল)।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ