মঙ্গলবার ১৪ জুলাই ২০২০
Online Edition

টাঙ্গাইলে স্ত্রীসহ আলীগ নেতা গ্রেফতার

শীর্ষনিউজ, টাঙ্গাইল : টাঙ্গাইলের সখীপুর থেকে তিন হাজার ইয়াবা বড়িসহ আওয়ামী লীগের এক নেতা ও তাঁর স্ত্রীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। ওই নেতা বলছেন, তিনি নন, মূলত তাঁর স্ত্রী মাদক ব্যবসার সঙ্গে জড়িত। গতকাল বুধবার বেলা ১১টার দিকে সখীপুর পৌরসভার ৭ নম্বর ওয়ার্ডের ভাড়া বাসা থেকে তাঁদের গ্রেফতার করা হয়। আওয়ামী লীগের ওই নেতার নাম ফজলুর রহমান (৫০)। তিনি বাসাইল উপজেলা আওয়ামী লীগের অর্থবিষয়ক সম্পাদক। তাঁর স্ত্রীর নাম রালিমা শিখা (৪০)। সখীপুর থানার পুলিশ রালিমা শিখার কাছ থেকে তিন হাজার ইয়াবা জব্দ করে। দুপুরের দিকে থানার উপপরিদর্শক (এসআই) শামছুল হক ওই দম্পতিকে আসামী করে মামলা করেন। পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, রালিমা শিখা গত মঙ্গলবার সকালে কক্সবাজার থেকে ইয়াবার একটি চালান নিয়ে বাসে ওঠেন। রাতে ঢাকায় নামেন। সেখান থেকে বুধবার সকালে সখীপুরে আসেন। সখীপুরের ওই বাসার ফটকের সামনে থেকে রালিমাকে আটক করা হয়। এ সময় তাঁর দেহ তল্লাশি করে তিন হাজার ইয়াবা পাওয়া যায়। পরে বাসায় অভিযান চালিয়ে পুলিশ মাদক ব্যবসার সঙ্গে জড়িত থাকার অভিযোগে ফজলুর রহমানকে গ্রেফতার করে। ফজলুর রহমান থানা হাজতে বলেন, ‘আমার দ্বিতীয় স্ত্রী রালিমা শিখা মাদক ব্যবসায়ী। তাঁকে এ ব্যবসা থেকে ফেরানোর অনেক চেষ্টা করা হয়েছে। বিনা দোষে পুলিশের হাতে আমি গ্রেফতার হলাম।’ সখীপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এস এম তুহীন আলী বলেন, আদালতে হাজির করে এই দম্পতির বিরুদ্ধে সাত দিনের রিমান্ড চাওয়া হয়েছে। তবে আজ রিমান্ড শুনানি হয়নি। দুজনকে কারাগারে পাঠানোর নিন্দেশ দিয়েছেন আদালত।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ