সোমবার ২১ সেপ্টেম্বর ২০২০
Online Edition

ঠাকুরগাঁ ৩ আসনের যারা মনোনয়ন প্রত্যাশী

জাকিরুল ইসলাম, পীরগঞ্জ (ঠাকুরগাঁও): একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন উপলক্ষে ঠাকুরগাঁও-৩ (পীরগঞ্জ-রাণীশংকৈল আংশিক) আসনে আওয়ামীলীগ, বিএনপি, জাতীয় পার্টি (জাপা) ও ওয়ার্কার্স পার্টির মনোনয়ন প্রত্যাশী প্রার্থীগণ নির্বাচনী মাঠ চষে বেড়াচ্ছেন। এ আসনে আওয়ামী লীগের একাধিক মনোনয়ন প্রত্যাশী মাঠে থাকলেও বিএনপি, জাতীয় পার্টি এবং ওয়ার্কার্স পার্টির একজন করে প্রার্থী মাঠে সক্রিয় রয়েছেন।
উল্লেখ্য, পীরগঞ্জ উপজেলার ১টি পৌরসভা ও ১০টি ইউনিয়ন এবং রাণীশংকৈল উপজেলার ১ টি পৌরসভা ও ৬ টি ইউনিয়ন নিয়ে ঠাকুরগাঁও-৩ আসন গঠিত। এ আসনে ভোটার সংখ্যা পীরগঞ্জ উপজেলায় মোট ভোটার ১ লক্ষ ৭৮ হাজার ১৮৯ জন। এর মধ্যে ৮৯ হাজার ৭৩৯ জন পুরুষ ও ৮৮ হাজার ৪৫০ জন মহিলা। রানীশংকৈল উপজেলায় মোট ভোটার ১ লক্ষ ২১ হাজার ৮২৮ জন। এর মধ্যে ৬২ হাজার ৩১২ পুরুষ ও ৫৯ হাজার ৫১৬ মহিলা। এ আসনটি ১৯৭০ সাল থেকে ২০০১ সাল পর্যন্ত নৌকা মার্কার দখলে থাকলেও তবে ২০০১ সালের নির্বাচনে ‘নৌকা ঠেকাও’ জুজু তৈরি করে জাতীয় পার্টি’র (এ) প্রেসিডিয়াম সদস্য হাফিজউদ্দীন আহম্মেদ লাঙ্গল মার্কা প্রতীকে জয়লাভ করেন। ২০০৮ সালে সাধারণ নির্বাচনে মহাজোট গঠিত হলে জাতীয় পার্টির প্রেসিডিয়াম সদস্য হাফিজ উদ্দীন আহম্মেদ মহাজোটের মনোনয়ন লাভ করেন এবং লাঙ্গল প্রতীকে বিএনপি’র প্রার্থী জাহিদুর রহমান কে পরাজিত করে এমপি নির্বাচিত হন। সবশেষ দশম জাতীয় সংসদ নির্বাচনেও জাতীয় পার্টির প্রেসিডিয়াম সদস্য হাফিজ উদ্দীন আহম্মেদ মহাজোটের মনোনয়ন লাভ করেন। ফলে আওয়ামী লীগ প্রার্থী সাবেক এমপি ইমদাদুল হক কেন্দ্রীয় নির্দেশে মনোনয়ন পত্র প্রত্যাহার করলেও মহাজোটের চেতনায় কুঠারাঘাত করে ওয়ার্কার্স পার্টির প্রার্থী ইয়াসিন আলী হাতুরী মার্কা নিয়ে নির্বাচনী মাঠে থেকে যান। পরে ইয়াসিন আলী ১৪ দলের ধুয়া তুলে আওয়ামী লীগকে বাগিয়ে নিতে সক্ষম হন। আওয়ামী লীগের সমর্থন পেয়ে ইয়াসিন আলী প্রায় ২৫ হাজার ভোটের ব্যবধানে মহাজোট প্রার্থী হাফিজ উদ্দীন আহম্মেদকে পরাজিত করে এমপি নির্বাচিত হন।
বর্তমানে ঠাকুরগাঁও-৩ আসন ১৪ দলের শরিক দল ওয়ার্কার্স পার্টির দখলে থাকলেও আগামীতে আওয়ামী লীগের দখলে নিতে কাজ করছেন জেলা আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি ও সাবেক এমপি ইমদাদুল হক এবং সংরক্ষিত মহিলা আসনের এমপি সেলিনা জাহান লিটা,  রানীশংকৈল উপজেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যন সইদুল হক ও পীরগঞ্জ উপজেলা পুজা উদ্যাপন পরিষদের সভাপতি অধ্যক্ষ গোপাল চন্দ্র রায়। বর্তমান এমপি ও ওয়ার্কার্স পার্টির জেলা সভাপতি ইয়াসিন আলীও মাঠ চষে বেড়াচ্ছেন। জাতীয় পার্টির প্রেসিডিয়াম সদস্য ও মহাজোটের সাবেক এমপি হাফিজ উদ্দিন আহম্মেদও দীর্ঘদিন থেকেই তৃণমুলে দলকে সংগঠিত করার কাজ করছেন।
অপরদিকে ২০ দলীয় জোটের প্রার্থী পীরগঞ্জ উপজেলা বিএনপি’র সভাপতি জাহিদুর রহমান জাহিদও দিন রাত নির্বাচনী মাঠ ঘুরে বেড়াচ্ছেন। আগামী একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে ঠাকুরগাঁও-৩ আসনে কোন দলের প্রার্থী নির্বাচিত হবেন জাতীয় সংসদ সদস্য- এ নিয়ে পীরগঞ্জ ও রাণীশংকৈল উপজেলার মানুষের মধ্যে চলছে নানামুখী বিচার-বিশ্লেষণ।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ